ভারতকে অল্পেই গুঁড়িয়ে দিলো দক্ষিণ আফ্রিকা

হ্যামস্ট্রিং চোটে পুরো সফরেই নেই রোহিত শর্মা। ম্যাচের আগে পিঠে ইনজুরিতে ছিটকে গেছেন অধিনায়ক বিরাট কোহলি। আর একদমই ফর্মে নেই দুই অভিজ্ঞ ব্যাটার চেতেশ্বর পুজারা ও অজিঙ্কা রাহানে। ফলে যা হওয়ার হলো তা-ই, জোহানেসবার্গ টেস্টে অল্পেই গুটিয়ে গেলো ভারত।

নতুন বছরের তৃতীয় দিনে সিরিজের দ্বিতীয় টেস্টে মুখোমুখি হয়েছে ভারত ও স্বাগতিক দক্ষিণ আফ্রিকা। টস জিতে আগে ব্যাট করতে মাত্র দ্বিতীয় ম্যাচ খেলতে নামা মার্কো জানসেনের তোপের মুখে পড়েছে লোকেশ রাহুলের নেতৃত্বাধীন ভারতীয় দল। নিজেদের প্রথম ইনিংসে মাত্র ২০২ রান করতে পেরেছে তারা।

জবাবে প্রথম দিনের খেলা শেষে দক্ষিণ আফ্রিকার সংগ্রহ ১ উইকেটে ৩৫ রান। ভারতের চেয়ে আর ১৬৭ রানে পিছিয়ে রয়েছে তারা।

ভারতের ইনিংসের শুরুটা খুব একটা খারাপ ছিল না। নির্বিঘ্নেই প্রথম ঘণ্টা কাটিয়ে দিয়েছিলেন দুই ওপেনার মায়াঙ্ক আগারওয়াল ও লোকেশ রাহুল। তবে ১৫তম ওভারের প্রথম বলে প্রথম ব্রেকথ্রু’টা দেন জানসেন। দলীয় ৩৬ রানের মাথায় উইকেটের পেছনে ক্যাচ দিয়ে ফেরার আগে ২৬ রান করেন মায়াঙ্ক।

এরপর হতাশ করেন পূজারা (৩) ও রাহানে (০)। বেশিক্ষণ উইকেটে থাকতে পারেননি হানুমা বিহারি (২০) এবং রিশাভ পান্তও (১৭)। এর মাঝে আউট হন অধিনায়ক রাহুল। তার ব্যাট থেকে আসে ইনিংসের ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ ৫০ রান। আর শেষদিকে ৪৬ রানের ইনিংস খেলে দলকে ২০০ পার করান রবিচন্দ্রন অশ্বিন।

দক্ষিণ আফ্রিকার পক্ষে বল হাতে ৪ উইকেট নিয়েছেন জানসেন। এছাড়া কাগিসো রাবাদা ও ডুয়াইন অলিভারের সংগ্রহ ৩টি করে উইকেট।

দিনের শেষ সেশনে ব্যাট করতে নেমে চতুর্থ ওভারেই ডানহাতি ওপেনার এইডেন মার্করামকে (৭) হারায় প্রোটিয়ারা। বাকি সময় নির্বিঘ্নে কাটিয়ে দেন ডিন এলগার ও কেগান পিটারসেন। এলগার ৫৭ বল খেলে করেছেন ১১ রান। পিটারসেন অপরাজিত রয়েছেন ৩৯ বলে ১৪ রান নিয়ে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *